পুতিন এখনও ইউক্রেনের বেশিরভাগ অংশ দখল করতে চান: যুক্তরাষ্ট্র

মার্কিন গোয়েন্দা সংস্থাগুলো বিশ্বাস করে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন এখনও ইউক্রেনের বেশিরভাগ অংশ দখল করতে চান। তবে মার্কিন কর্মকর্তাদের অনুমান যুদ্ধে মস্কোর বাহিনী এতোটাই দুর্বল হয়ে পড়েছে যে তারা কেবল মাত্র ধীরে আঞ্চলিক অগ্রগতি অর্জন পারবে। এর অর্থ এই যুদ্ধ দীর্ঘদিন চলতে পারে বলে জানান যুক্তরাষ্ট্রের ন্যাশনাল ইন্টেলিজেন্স এর পরিচালক এভ্রিল হাইনিস।

কিয়েভ এবং অন্য শহর দখলে ব্যর্থ হয়ে মার্চে মস্কো ইউক্রেনের ডনবাস এলাকা দখলের দিকে মনোযোগ দেয়। যুক্তরাষ্ট্রের শীর্ষ গোয়েন্দা কর্মকর্তা হাইনিস বলেন, পুতিনের এখনও একই লক্ষ্য রয়েছে যা তিনি সংঘাতের শুরুতে রেখেছিলেন- ইউক্রেনের বেশিরভাগ অংশ দখল করা। তবে রাশিয়ার সেই লক্ষ্য শিগগিরই অর্জনের সম্ভাবনা কম বলে জানান তিনি।

মার্কিন বাণিজ্য দফতরের এক সম্মেলনে হাইনিস বলেন, ‘আমরা এই এলাকায় পুতিনের স্বল্প-মেয়াদী সামরিক উদ্দেশ্য এবং তার সামরিক সক্ষমতার মধ্যে সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়তে দেখছি, তার উচ্চাকাঙ্ক্ষা এবং সামরিক বাহিনীর সক্ষমতার মধ্যেও এক ধরনের অমিল রয়েছে’।

প্রাথমিক লক্ষ্য কিয়েভ দখলের চেষ্টা ব্যর্থ হওয়ার পর রাশিয়া ডনবাস এলাকার নিয়ন্ত্রণে মনোযোগ দিয়েছে। ইউক্রেনের পূর্বাঞ্চলের বিশাল এই শিল্প এলাকায় রুষভাষীদের ওপর ইউক্রেন গণহত্যা চালাচ্ছে বলে মিথ্যা অভিযোগ তুলে আসছেন পুতিন।

রুশ বাহিনী ডনবাসে খানিক অগ্রগতি পেয়েছে। সম্প্রতি সেখানকার সেভেরোডনেস্ক শহরের নিয়ন্ত্রণ নিয়েছে। কিন্তু অগ্রগতি ধীর হয়ে পড়েছে এবং ইউক্রেনীয় বাহিনী জোরালো প্রতিরোধ গড়ে তুলেছে।

সূত্র: বিবিসি

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *