ফের যুক্তরাষ্ট্রে বন্দুকবাধারীর হামলা, নিহত ৩

মার্কিন মুলুকে আবারো ঘটেছে বন্দুকধারীদের হামলার ঘটনা। এ নিয়ে তিন দিনে তৃতীয়বারের মতো গুলি চালিয়ে হত্যা চলেছে যুক্তরাষ্ট্রে। এ ঘটনায় নিহত হয়েছেন তিনজন। আর আহত হয়েছেন কমপক্ষে ১১ জন।

শনিবার রাতে ফিলাডেলফিয়াতে ভিড়ের মধ্যে একাধিক বন্দুকধারী হামলা চালায় বলে জানায় পুলিশ। নিহতদের মধ্যে দু’জন পুরুষ ও একজন নারী বলে জানা গেছে।

যে রাস্তায় হামলার হয়, সেটি রাতেও বেশ জমজমাট থাকে।

স্থানীয় পুলিশ ইনস্পেক্টর ডি এফ পেস জানান, শনিবার সাপ্তাহিক ছুটির কারণে বেশ ভিড় হয়েছিল রাস্তায়। সেখানে একাধিক বন্দুকধারী ছিল বলে ধারণা করছে পুলিশ। তারা ভিড়ের মধ্যে ঘোরাফেরা করছিল। কিন্তু প্রচণ্ড ভিড় থাকার কারণে তাদের ধরা সম্ভব হয়নি।

ভিড়ের মধ্যে যখন প্রথমবার গুলির শব্দ পাওয়া যায়, ওই সময়ও সেখানে ছিলেন পুলিশ সদস্যরা। ভিড়ের দিকে নজর রাখতে প্রায়ই পুলিশ মোতায়েন করা হয়।

গুলির শব্দ পাওয়ার পরে পুলিশ পাল্টা গুলি ছোড়ে। তখনই বন্দুক ফেলে রেখে একজন বন্দুকধারী পালিয়ে যান। এখন পর্যন্ত কাউকে গ্রেফতার করা যায়নি এ ঘটনায়।

পুলিশ জানায়, ঘটনাস্থল থেকে দুটি হ্যান্ডগান ও কার্তুজ উদ্ধার করা হয়েছে। এলাকার সিসিটিভি ফুটেজ খতিয়ে দেখা হবে। সেজন্যে সকাল পর্যন্ত অপেক্ষা করতে চাইছে স্থানীয় পুলিশ।

সাম্প্রতিক সময়ে বারবার বন্দুকধারীর হামলায় আক্রান্ত হয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। স্কুলে ঢুকে শিশুদের ওপর নির্বিচারে গুলি চালানো থেকে রাস্তায় নিরস্ত্র জনতার দিকে তাক করে হামলা, বাদ পড়েনি কিছুই।

এ ধরনের হামলা অব্যাহত থাকায় প্রশ্নের মুখে যুক্তরাষ্ট্রের বন্দুক কেনার নীতি। সাবালক হলেই বন্দুক কেনার অধিকার রয়েছে মার্কিন নাগরিকদের। একের পর এক এ ধরনের হামলার ঘটনায় এবার রীতিমতো চাপ বাড়ছে বাইডেন প্রশাসনের ওপর। দেশজুড়ে আগ্নেয়াস্ত্র নিয়ন্ত্রণে কড়া আইন আনার জোরাল দাবি উঠছে।

সূত্র : সংবাদ প্রতিদিন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *