শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসে মুন্সীগঞ্জে আ’লীগের আলোচনা সভা ও র‌্যালি

তুষার আহাম্মেদ –  মুন্সীগঞ্জে নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে শেখ হাসিনার ঐতিহাসিক স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উদযাপন করা হয়েছে। বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সভাপতি, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৪১তম ঐতিহাসিক স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসে ( আজ মঙ্গলবার) দিনটি উদযাপন  উপলক্ষে মুন্সীগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের আয়োজনে বণাঢ্য  শোভাযাত্রা প্রদশন ও আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়।
জেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি আলহাজ মো. মহিউদ্দিনের নেতৃত্বে মুন্সীগঞ্জ পৌর মেয়র হাজি মোহাম্মদ ফয়সাল বিপ্লবের তত্বাবধানে জেলা ছাত্রলীগ , যুবলীগ , স্বেচ্ছাসেবকলীগ , মহিলা আওয়ামীলীগ ,যুব মহিলালীগ , মৎস্যজীবীলীগ, কৃষকলীগ, শহর আওয়ামীলীগ , পৌর আওয়ামীলীগ সহ সকল অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীরা আলোচনা ও র‌্যালিতে অংশ নেয়।
মিছিল আর ব্যানারে মুখরিত থাকে পুরো মুন্সীগঞ্জ শহর । শোভাযাত্রাটি জেলা আওয়াীলীগের কার্যালয় থেকে শুরু করে সুপার মার্কেট ও শহরের গুরুত্বপুন জায়গা প্রদক্ষিন করে পূনরায় জেলা আওয়ামীলীগ কার্যালয় পুরাতন কাচারিতে এসে শেষ হয়।
মঙ্গলবার বিকেল ৪ টায়  জেলা আয়োমীলীগের কায্যলয়ে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি জেলা পরিষদের প্রশাসক বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ মো. মহিউদ্দিন  সভাপতিত্ব করেন।
এ সময় তিনি বলেন ,  বাঙ্গালী জাতির স্থপতি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হত্যার পর ১৯৮১ সালের ১৭ মে দীর্ঘ নির্বাসন শেষে বাংলার মাটিতে ফিরে আসেন বর্তমান আওয়ামী লীগ সভাপতি ও সফল প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এদিন বিকেল সাড়ে ৪টায় ইন্ডিয়ান এয়ারলাইন্সের একটি বোয়িং বিমানে তিনি ভারতের রাজধানী দিল্লি থেকে কলকাতা হয়ে তৎকালীন ঢাকা কুর্মিটোলা বিমানবন্দরে এসে পৌঁছান।
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জন্যই আমরা বাঙ্গালি জাতি বিশ্বের বুকে মাথা উচু করে দাড়াতে পেরেছি। দেশ আজ মধ্যম আয়ের দেশ হিসেবে উন্নিত হয়েছে। চারদিকে শুধু উন্নয়নের জয়জয়কার। অনেক ত্যাগ স্বীকার করে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ কে আজ এ পযর্ন্ত এনেছেন শেখ হাসিনা । আজ বিশ্বের দরবারে বাঙ্গালি জাতি মাথা উচু করে কথা বলতে পারছে। শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন  না হলে আজ আমরা কোন কিছুই পেতাম না ।
প্রধানমন্ত্রীর হাত কে আরো শক্তিশালি করতে এবং উন্নয়নের ধারাকে অব্যাহত রাখতে সকলকে মিলেমিশে কাজ করতে আহবান জানান।
এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন জেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক আলহাজ শেখ লুৎফর রহমান , যুগ্ম সাধারন সম্পাদক এড. সোহানা তাহমিনা , সাংগঠনিক সম্পাদক মো. কামাল হোসেন , সহর আওয়ামী লীগের গঠনিক সম্পাদক মিজানুর রহমান নাছির, মনির হোসেন নান্নু, সবুজ, মিঠু, মিলটন, লিন্টু, আসরাফ উজ্জামান বনি, মানুন খালাসি, শামিম, প্রশান্ত, নিবির আহাম্মেদ, ফাইম,নাহিয়ান আরও উপস্হিত ছিলেন জেলা ছাত্রলীগ সভাপতি ফয়সাল মৃধা , জেলা মহিলা আওয়ামীলীগ সাধারন সম্পাদক এড. শামসুন নাহার শিল্পী , থানা ছাত্রলীগ সভাপতি মো, সুরুজ মিয়া  , চর কেওয়ার ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি আব্দুর রাজ্জাক , শহর আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক সাইদুর রহমান ভুইয়া ,
শহর ছাত্রলীগ সভাপতি নছিবুল ইসলাম নোবেল , জাতীয় চার নেতা ঐক্য পরিষদের আহবায়ক এড. সালমা বেগম ,কাউন্সিলর সাজ্জাদ হোসেন সাগর , যুবলীগ নেতা মালেকুন মাকসুদ বিপুল , বজ্রযোগিনী ইউনিয়ন যুবলীগের সহ সভাপতি মোহাম্মদ আলী রোবেল , ছাত্রনেতা মশিউর রহমান রাসেল, গফুর, সজিব,রোমেল, ডাকটার সোহেল, মেয়র সোহেল, ঘটি মইন্নাসহ সকল আওয়ামী লীগ সংঘটনের সকল নেতাকর্মীরা এতে উপস্থিত ছিলেন ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *